মুস্তাফিজের ঝলকের পরেও দিল্লির হার

৪ ওভার দুর্দান্ত বোলিং করেও দল কে জয় এনে দিতে পারেন নি ফিজ। ৬ উইকেটে লক্ষ্মৌ সুপার জায়ান্টের বিপক্ষে হেরেছে তার দল দিল্লি ক্যাপিটালস।

টস জিতে ফিল্ডিং বেছে নেয় লক্ষ্মৌ অধিনায়ক কে এল রাহুল। তবে আক্রমণাত্মক শুরু করে দিল্লির ওপেনার পৃথ্বি শ। ডেভিড ওয়ার্নার কে দর্শক বানিয়ে একাই ঝড় তোলেন পিচে। তার দারুন ব্যাটিং বেশ এগিয়ে নিতে থাকে দিল্লিকে। অর্ধশতক তুলে নেন তিনি। দলীয় ৬৭ রানে বিদায় নেন ব্যক্তিগত ৬১ রান করে, এতেই বুঝা যায় কতটা আক্রমণাত্মক ছিল তার ইনিংস।

তার বিদায়ের পর অবশ্য আর এই গতি খুজে পাওয়া যায়নি দিল্লির ইনিংসে। দ্রুত ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পরে দিল্লি। শেষ দিকে রিশাব পান্টের ৩৯ ও সরফরাজের ৩৬ রানে ভর করে ৩ উইকেটে ১৪৯ রান তোলে দিল্লি ক্যাপিটালস।

১৫০ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে দারুন শুরু পায় লক্ষ্মৌ। ফিজ পাওয়ার প্লে তে ২ ওভারে মাত্র ৮ রান দিলেও উইকেট না হারিয়ে ৪৮ রান তোলে তারা। রাহুল ও ককের জুটিতে সহজ জয়ের দিকেই যায় তারা। রাহুল বিদায় নেয় ২৪ রান করে। লুইস করেন ১৩ বলে ৫। তবে ডি ককের ৮০ রানে জয়ের দিকেই এগিয়ে যায় লক্ষ্মৌ। তবে তারা এগিয়ে যায় হুদা ও ক্রুনাল পান্ডিয়ার ব্যাটে ভর করে।

তবে শেষ পর্যন্ত ক্রুনাল পান্ডিয়া ও বাদোনির ব্যাটে ৬ উইকেটের জয় অয়ায় লক্ষ্মৌ সুপার জায়ান্ট। ৪ ওভার বোলিং করে উইকেট না পেলেও মাত্র ২৬ রান খরচ করেন মুস্তাফিজুর রহমান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.