ফুটবলের রাজপুত্র লিওনেল মেসির ৩৫ তম জন্মদিনে ভক্তদের বিশ্বকাপ প্রত্যাশা

বিশ্বকাপ জিতলে যদি একটা ফুটবলার গ্রেট হয়ে যেত তাহলে এখন বিশ্বের মধ্যে কয়েক শত গ্রেট ফুটবলার থাকতো। কিন্তু বর্তমানে বিশ্বের সেরা ফুটবলার হিসেবে বিবেচিত হয় লিওনেল মেসি। যার ঝুলিতে নেই একটাও বিশ্বকাপ শিরোপা।

 

বিশ্বকাপকে একেবার তুচ্ছ করে ফেলেছেন লিওনেল মেসি। কে বলে মেসি ভিনগ্রহের ফুটবলার যদি তাই হতো তাহলে বিশ্বকাপ শিরোপাটা না পাওয়ার জন্য দুঃখ করত না মুখ লোকিয়ে কান্না করতেন না। কে বলে মেসি জাদুঘর যদি তাই হত তাহলে প্রতিটা গোলের পরে সাত আসমানের উপর হাত তুলে কিতগতা জানাত না। মেসি যে বড্ড সাধারণ। সাধারণ বলে ফুটবল মাঠে প্রতিনিয়ত স্বপ্নটাকে তিনি তারা করে বেড়ান।কোটি কোটি ভক্ত মেসি জিতলে তারা যেতে মেসি হারলে তার হারে।

 

যার ঝুলিতে রয়েছে টানা চারবার সহ মোট ৭ বার ব্যালেন ডি-অর জেতার রেকর্ড যা ফুটবল ইতিহাসে বিরল রেকর্ড। এর পাশাপাশি তিনি সর্বোচ্চ ছয় বার ইউরোপের সোনালী বুট জেতার রেকর্ড। ঘরোয়া ফুটবলে বার্সেলোনার হয়ে দশটি লা-লিগা ৪টি উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লিগ এবং ৬ টি কোপা দেল-রে সহ মোট ৩৩ টি শিরোপা জয় করেন যা বার্সেলোনার ইতিহাসে কোন খেলোয়াড়ের সর্বোচ্চ।লা লিগার ইতিহাস সর্বোচ্চ গোলদাতার মেসি ৪৪০ গোল তার দখলে। জাতীয় দল এবং ক্লাব হয়ে তিনি সর্বোচ্চ ৭০০ টি অধিক গোল করেছেন।

 

২০১৮ বিশ্বকাপ ২০১৯ কোপার আমেরিকা দলে নেতৃত্ব দেন লিওনেল মেসি এবং ২০২১ সালের কোপা আমেরিকায় তার নেতৃত্বে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে আর্জেন্টিনা। ২০১৪ বিশ্বকাপে জার্মানির সাথে এক গোলে পরাজিত হয় স্বপ্ন ভঙ্গ হয় আর্জেন্টিনার যায় এখনো মেসির জন্য দুঃস্বপ্নের মতো হয়ে আছে। ফুটবলের রাজপুত্র লিওনেল মেসি ৩৫ তম জন্মদিন আজ। মেসি ২৪ জুন ১৯৮৭ আর্জেন্টিনার রোসারিও শহরে জন্ম গ্রহন করেন। জন্মদিন উপলক্ষে ভক্তরা তার কাছে বিশ্বকাপটা চাইতে পারে। ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে মেসির দিকে অধিক আগ্রহে অপেক্ষা থাকবে মেসির কোটি ভক্ত এটাই যে তার শেষ বিশ্বকাপ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.